পুত্রবধূকে নির্যাতনের ভিডিও ভাইরাল, শ্বাশুড়ি গ্রেফতার (ভিডিও সহ)

Bidhan DasBidhan Das
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৩:৪৪ PM, ০৬ সেপ্টেম্বর ২০২০

পিরোজপুর : পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলায় সৌদি প্রবাসী এক ব্যক্তির স্ত্রীকে শ্বশুর-শাশুড়ি কর্তৃক নির্যাতনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনার ভিডিও ফেসবুকে প্রচারের পরে মঠবাড়িয়া থানা পুলিশ শনিবার (৫ সেপ্টেম্বর) রাতে অভিযুক্ত শাশুড়ি আলেয়া বেগমকে গ্রেপ্তার করেছে।

পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া উপজেলার আমারগাছিয়া ইউনিয়নের মানিকখালী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে এবং শনিবার রাতে এ বিষয়ে আহত গৃহবধূ তানজিলা বেগমের বাবা ছিদ্দিক মীর বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছে বলে জানান মঠবাড়িয়া থানার ওসি আ জ মো. মাসুদুজ্জামান।

আহত তানজিলা বেগম (২৬) জেলার মঠবাড়িয়া উপজেলার আমারগাছিয়া ইউনিয়নের মানিকখালী গ্রামের সৌদি আরব প্রবাসী নাসির উদ্দিন মুন্সির স্ত্রী।

মামলায় অভিযুক্তরা হলো পিরোজপুর জেলার মঠবাড়িয়া উপজেলার আমারগাছিয়া ইউনিয়নের মানিকখালী গ্রামের আহত গৃহবধূর শ্বশুর ধলু মুন্সি (৫৫), শ্বাশুড়ি আলেয়া বেগম (৪৫), চাচা শ্বশুর নূর মোহাম্মদ।

আহত গৃহবধূর বাবা ছিদ্দিক মীর জানান, গত বৃহস্পতিবার তার মেয়ের সাথে পারিবারিক একটি বিষয় নিয়ে তার শাশুড়ি আলেয়া বেগমের সাথে তর্ক হয়। এ সময় তার মেয়ের শ্বশুর ধলু মুন্সি তার মেয়েকে ধরে ঘরের সামনের উঠানে ছুঁড়ে মারে এবং শ্বশুর, শ্বাশুড়ি ও চাচা শ্বশুর মিলে নির্যাতন চালায়। এ ঘটনা তার ৮ বছরের নাতি নারগিস মোবাইলে ভিডিও করে। পরে বিষয়টি তিনি জানতে পেরে শ্বশুর বাড়ি থেকে তার আহত মেয়েকে উদ্ধার করে মঠবাড়িয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

মঠবাড়িয়া থানার ওসি আ জ মো. মাসুদুজ্জামান, ঘটনা জানার পরপরই শনিবার রাতে আহত গৃহবধূ তানজিলার বাবা ছিদ্দিক মীর বাদী হয়ে থানায় মামলা করলে অভিযুক্ত শ্বাশুড়ি আলেয়া বেগমকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ এবং অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

নির্যাতনের ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুন :

বিডি

 

অপরাধ

আপনার মতামত লিখুন :