ঠাকুরগাঁওয়ের রেলের কাজে চলছে দূর্নীতির মহোৎসব

tkeditortkeditor
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০২:৩৫ AM, ০৬ মে ২০১৬

আব্দুল আওয়াল, ক্রাইম রিপোর্টার : দিনাজপুরের কাঞ্চন ষ্টেশন থেকে পঞ্চগড় ১শ কিঃমিঃ রেল লাইন ও ১শ ৩৪টি ব্রিজ সংস্কার এবং ষ্টেশন ভবন গুলো পূনঃ নির্মান করা হচ্ছে।

এই সংস্কার ও পূনঃ নির্মানের কাজ করছে ম্যাক্স ও তমা ২টি ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান। এ কাজে বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে ৭শ কোটি টাকা। এ ছাড়াও পুরাতন ষ্টেশন বিল্ডিং গুলো ভেঙ্গে নতুন ও প্লাট ফর্ম নির্মান কাজে মনগড়া পৃথক বরাদ্দ নিয়ে এ কাজ গুলো করা হচ্ছে। এ কাজের তদারকি রেল প্রকৌশলী বিভাগ নিজেই করছে। রেল ষ্টেশন ঠাকুরগাঁও এ ষ্টেশনের রাস্তা নির্মাণ হচ্ছে। সাবব্যাজ ছাড়া পুরাতন ও ড্যামেজ মালামাল দিয়ে রাস্তা নির্মান হচ্ছে। এই রাস্তা নির্মানে বৃটিশ সময়ের পুরাতন রাস্তা ব্যবহার করা হলেও ৩ ফিট করে রাস্তা বর্ধিত করা হয়েছে। বর্ধিত ঐ রাস্তার নিচে কোন প্রকার ইট বা খোয়া না দিয়ে সরাসরি রাস্তা নির্মান চলছে।

এ বিষয়ে নির্মাণ কাজের প্রকৌশলি আই ডাব্লু তারেক রহমানের সাথে যোগাযোগ করা হলে তাকে খুজে পাওয়া যায়নি। নির্মান ঠিকাদাররা এ ধরণের রাস্তা নির্মান কাজকে দূর্নীতির প্রদর্শনী বলে চিহ্নিত করেছেন।

এ বিষয়ে ঠাকুরগাও রোড প্রেস ক্লাব সভাপতি সৈয়দ আবদুল করিম জানান, এ নির্মান প্রদর্শনি আমি নিজে দেখে এসেছি এখন ঠাকুরগাঁও এলজিইডি নির্বাহী প্রকৌশলী ও এ জেলার নির্মান ঠিকাদারদের রেলের এই নির্মান দূর্নীতির প্রদর্শনি সকলকে দেখে আসার আহ্বান জানাই।

এ বিষয়ে রেলষ্টেশন মাষ্টারের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, এ বিষয়টি তার নয়।

জেলা রেডক্রিসেন্ট সোসাইটির সাধারন সম্পাদক এস এম সলায়মান জানান, এই রেল বিভাগের দূর্নীতি মেনে নেওয়ার মতো নয়। তিনি অনতিবিলম্বে খারাপ কাজ গুলো ভেঙ্গে নতুন ভাবে কাজ করিয়ে নেওয়ার জন্য উর্ধ্বতন কর্মকর্তার হস্তক্ষেপ চেয়েছেন।

অপরাধ

আপনার মতামত লিখুন :