খানসামার সড়কগুলো এখন সরকারি চাতালে পরিণত

tkeditortkeditor
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৪:৫৮ PM, ২০ মে ২০১৬

মোহাম্মদ সাকিব চৌধুরী, খানসামা(দিনাজপুর)থেকে : দিনাজপুরের খানসামা উপজেলার প্রায় প্রত্যেকটি সড়কে বোরো ফসল কর্তন করে স্থানীয় কৃষকেরা কাটা ধান,মাড়াই করা ধান ও ধানের খড় রেখে সড়ক সংকীর্ণ করে রাখায় ব্যাপক দূর্ঘটনার আশঙ্কা করছেন স্থানীয় বিশিষ্টজনেরা। এসব চিত্র দেখে মনে হবে এটা কোন সড়ক নয় এ যেন সরকারি চাতাল।

রাস্তা সংকীর্ণ হওয়ার কারনে উপজেলার প্রায় প্রতিটি সড়কে চলাচলরত সকল যানবাহন চলছে অনেক ঝুকিঁর মধ্যে । এছাড়াও রাস্তায় শুকাতে দেওয়া হয়েছে ভুট্টা। কয়েকজন অটো চালকের সাথে কথা বলে জানা যায়, আগে খানসামা থেকে দারোয়ানী যেতে সময় লাগতো ৪০ মিনিট কিন্তু বর্তমানে সড়কে ধান মাড়াই, ধান ও খড় শুকানোর কারনে রাস্তা সংকীর্ণ করায় এখন খানসামা থেকে দারোয়ানী যেতে সময় লাগে কমপক্ষে দেড় ঘন্টা । আবার রাস্তায় এসব কর্মকান্ড চালায় প্রতিনিয়তই ঘটছে ছোট-বড় দূর্ঘটনা ।
উপজেলার খানসামা-পাকেরহাট, পাকেরহাট-বোর্ডেরহাট, রানীরবন্দর, সৈয়দপুর সড়কে বৃহস্পতিবার সরেজমিনে দেখা যায়, রাস্তায় চলমান সকল যানবাহন দূর্ঘটনার সম্মুখীন হয়ে ঝুঁকি নিয়ে কাজ করছে কৃষক-কৃষানীসহ শিশু বাচ্চারাও । আবার রাস্তা সংকীর্ণ হওয়ার কারনে কোথায় কোথায় মাঝে মাঝে যানজটেরও সৃষ্টি হচ্ছে।এব্যাপারে কয়েকজন কৃষকের সাথে কথা হলে তারা জানান, বাড়িতে জায়গা না থাকায় ও চাটালে এই সময় প্রচুর ভীড় থাকায় আমরা বাধ্য হয়ে রাস্তায় ধান মাড়াই ও শুকানোর কাজ করে থাকি।এলাকার সচেতন জনগন খড়ের স্তুপ বা পালা দিয়ে দখলকৃত সড়কগুলো দখল মুক্ত করার জন্য সংশ্লিষ্ট কতৃপক্ষের কাছে জোড় দাবি জানিয়েছে।

জনদুর্ভোগ

আপনার মতামত লিখুন :