কালিহাতীতে কমছে বন্যার পানি; বাড়ছে রোগবালাই

tkeditortkeditor
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ১০:২৭ PM, ০৬ অগাস্ট ২০১৬

শুভ্র মজুমদার, কালিহাতী(টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি : টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার ১০টি ইউনিয়ন বন্যার কারনে পানির নিচে অবস্থান করলেও বর্তমানে পানি ধীরগতিতে কমতে শুরু করেছে।কিন্তু শুরু হয়েছে বাড়ীঘর ভাঙ্গন পাশাপাশি পাল্লা দিয়ে বাড়ছে রোগবালাই।

কালিহাতী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও বিভিন্ন ক্লিনিকে রোগীদের ভীড় বাড়তে শুরু করেছে। উপজেলা পরিষদ ও উপজেলা প্রশাসন তেমন নগদ টাকা ও ঔষধের কোন ব্যবস্থা করতে না পারায় রোগীরা হতাশ।

ভূক্তভোগী এক রোগী জানায় , দুঃখে যাদের জীবন গড়া তাদের আবার দুঃখ কিসের” সর্বনাশা যমুনা নদীর পাড় ভাঙ্গনে টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার, দূর্গাপুর, দশকিয়া, গোহালিয়াবাড়ী, সল্লা , নারান্দিয়া, এল্ঙ্গো, বাংড়া, সহদেবপুর, পাইকড়া, কোকডহড়া ইউনিয়নগুলির স্কুল, মাদ্রাসা, মসজিদ, মন্দির, হাটবাজার, ঘরবাড়ী, রাস্তাঘাট,চড়ার ফসল তলিয়ে বিপদ সীমায় হাজার মানুষ পানি বন্দি অবস্থায় মানবেতর জীবন যাপন করছে। পানি বন্দি অসহায় মানুষ গুলো বিভিন্ন রোগ শোকে ভারাক্রান্ত অবস্থায় বসবাস করছে।

বর্তমানে পানি কিছুটা কমলেও রোগবালাইয়ের চিকিৎসা বাবদ সরকারী কোন প্রকার খাবার ও ঔষধ পত্র বা বাড়ীঘর মেরামত করার নগদ টাকার সাহায্য না পাওয়ার অভিযোগ তুলছেন বানবাসীরা।

উপজেলা চেয়ারম্যান মোজহারুল ইসলাম তালুকদার বলেন, অবিলম্বে তাদের কিছু সমস্যা সমাধান করা হয়েছে। তিনি জানান, সরকারের পাশাপাশি অর্থশালী লোকজনদের এগিয়ে আসতে হবে।

কালিহাতী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু নাসার উদ্দিন বলেন, উপজেলায় নদী ভাঙ্গনে ক্ষতিগ্রস্থদের তাৎক্ষণিক সাহায্য প্রদানের জন্যে তালিকা করে বিষয়টি জেলা প্রশাসক স্যারকে জানিয়েছি, তিনি আমাকে আশ্বাস দিয়েছেন।

জনদুর্ভোগ

আপনার মতামত লিখুন :